আলতাফ হোসেন-এর চারটি কবিতা

রিমোট পোলার ভালুক দেখলাম কীভাবে যে বাঁচতে চেয়েছিল মেঘে ঢাকা তারার সুপ্রিয়াকে মনে পড়ল তো আবার যখন পরে দৃশ্যপটে বাচ্চাকে নিয়ে মা হাতি যাচ্ছিল অল্পবয়সী নিরুপায় সিংহগুলি চেষ্টা করছিল কেড়ে নিয়ে কামড়ে-ছিঁড়ে খাবে মা ঘুরে এসে রুখে দিচ্ছিল আহা রে বাচ্চা তো—শূন্যে হাত ছুঁড়ছি, না, কিছুতে না শত্রুরা জিতে যায় …

সম্পুর্ন​

আলতাফ হোসেন-এর ১১টি কবিতা

কবিতা ১   কী ভেবে অনেকগুলো কবিতা লিখে ফেলেছি দেখা যাচ্ছে ওই যে পত্রিকা, রাগী কাগজ স্তুপ করে রাখা ওই যে বইগুলো ছড়িয়ে-ছিটিয়ে আমার নাম ওদের ভেতরের জানালা থেকে উঁকি দিচ্ছে দেখতে পাচ্ছি কিন্তু কবিতাদের কেউ এসে বলছে না, ‘আমাকে চেন?’   কবিতা ২   শেষে ভেবেছিলাম হোমাইপুরের গাঁয়ে আবার …

সম্পুর্ন​

কিছু কবিতা

আলতাফ হোসেন ১ এখন পরীক্ষায় কী হবে সাপখোপ হয়তো বেরবে যা টক্সিক,তাই তো নিদান হাসিমুখে আজ  ফিরে যান ঘাসমাটি না বলে এনেছে একদিন ওই দূর, দূর ফেরার, অচিন ২ রোদ, রিক্সার কথা ভাই বলে যাও পাহাড়টার ওপারে গেলেই শুধু হাওয়া হয়তো সেই পাখিখেকো গাছটিই এসে দাঁড়াবে সাত হাত তুলে দেখিয়ে …

সম্পুর্ন​

আলতাফ হোসেন-এর দুটি কবিতা

১ পোক করেছে আশফোক তুমিও তাকে করো পোক আসমানে একটি তৈরি হয়েছে ঝোপ তাতে দুনিয়াকে সেলাম করব না লাথ মারব গান বাজছে লাল লাল বাচ্চা সৈন্যদের এনে এনে জড়ো করছে কখন যে মাঠ গজিয়েছে এভাবে করলে হবে না এখানে ভারী কিছু না-শোনা কিছু শব্দ আনো রসুনে আগুন দাও আর তোমার …

সম্পুর্ন​

কয়েকটি কবিতা

আলতাফ হোসেন ইউথ্যানাসিয়া ইউথ্যানাসিয়া এসে ঘুরঘুর করল ঘুরঘুর করল একদিন যেমনটা করেছিল কোকানোভা বালগেরিয়ার খসরু-র ফিল্মোৎসবে একদাসমাজতন্ত্রে তুমিও বাসিনী? কোমলাঙ্গ আপেলরঙ আনতনয়না ঘুম জড়িয়ে ধরবে কি ঘর্ঘর ঘর্ঘর শব্দ। ট্রাক থেকে নেমে এল মার্সি কিলিং   প্রত্যেক রাতকে প্রত্যেক রাতকে ভাবি শেষ রাত কুকুররা ডাকছে ঘড়ি ফেলছে পা, তার হাত …

সম্পুর্ন​

আলতাফ হোসেনের একগুচ্ছ কবিতা

কবিতা ১ ওদের মহলে যেতে চাই নিজেরা নিজেরা বেশ মশগুল, চলছে গুলতানি আয়নায় মুখ দেখে দেখে ক্লান্ত আমি একজন লিখছে কিছু ফেসবুকে বিশজন ঝাঁপিয়ে নামছে প্রকাশ্যে এমন আড়ালে আড়ালে আরও কত কত বার্তা বিনিময়, কত খুনশুটি চলেছে আমি সব দেখতে পাই, শুনতে পাচ্ছি আমি আমার কথাই বলছে, আমাকে যে নেবে …

সম্পুর্ন​

দুটি কবিতা

আলতাফ হোসেন   ধারাবর্ণন   ধ্বংসের মধ্য দিয়ে যাত্রা উনি আরামসে বলেন আর উট উড়ে যায় সপ্তম শতক থেকে একুশের অন্তিম অবধি এই দ্রুত, এই ধীর, এই মধ্য লয়ে রোদ কিংবা ছায়া আজ অচেনা-যে কেউ তা বলেনি প্রিয় গায়ত্রীর গান সমাপ্ত হতেই স্বর সমবেত : সব আজ শেষ হোক শেষ …

সম্পুর্ন​