মাহমুদ কামালের একগুচ্ছ কবিতা

ঈম্বর ও মানুষ

আয়নায় কাকে দেখি!
আমি এক ধূর্ত শয়তান
প্রতিবিম্বে ভেসে ওঠে
ঈশ্বরের ছবি
আয়না ভেঙে গেলে
ভাঙা কাঁচে ঈশ্বর ও শয়তান
পরস্পর খুনসুটি করে
পরাজিত নয় কেউ…
এর পর ধূর্ত শয়তান
এই আমি মানুষ হয়ে উঠি।

 

সাহস ও ধৈর্য

সাহস ধৈর্যকে পরাজিত করে…

ধৈর্যের চেয়ে কি সাহসের বেশি প্রয়োজন?
নাকি সাহসের চেয়ে ধৈর্য!
এই প্রশ্নের সমাধান খুঁজতে গিয়ে
কখনো সাহস হারিয়ে ফেলি
কখনো ধৈর্য।

 

গোপনেরও সৌন্দর্য আছে

গোপন প্রকাশ্য হলে
আলোকের দ্যুতি কমে যায়
গোপনের ঘরে গোপনকে
রেখে দেয়া ভালো
গোপনেরও সৌন্দর্য আছে
শিল্পের সকল সংজ্ঞা
শুধুমাত্র প্রকাশে মেলে না
অপ্রকাশও জীবনের সৌন্দর্য প্রতীক।

 

পরের বাক্য

যেখানেই থেমে ছিল কমা
সেখান থেকেই শুরু করা ভালো
পুনরাবৃত্তির কোনও প্রয়োজন নেই
ঘুরেফিরে যে বাক্যটি
তাড়া করে জয়ী হতে চায়
তাকে ফেরাতে পারলে পরের বাক্য
দ্রবীভ‚ত হবে।
যদিওবা নবীকৃত হয়
বিজিতও পংক্তিযোগ্য তবে।
শুরু ও শেষের এই মাঝাখানে
যে সময় ঢেউহীন থাকে
অতিক্রম হয় না বলেই
সেমিকোলনেই আটকে যায়
বাক্যনিচয়

যেখানেই থেমেছিল কমা
সেখান থেকেই শুরু করা ভালো

 

মেঘের স্বজন

মেঘের স্বজন হয়ে মেঘকেই দ্রবীভ‚ত করে
চোখের কান্না
কিশোরীর সজনে লতা ¤øানমুখী হলে
আঙুরলতার মতো জড়ানো প্রকৃতি
মুঠো খুলে দেয়
দূরের জানালা থেকে
উঁকি দেয়া অলৌকিক আলো
অনূদিত করে দেয় নীরব প্রেমের ভাষা
নেই বলে প্রিয়তর তুমি

 

মাহমুদ কামাল

জন্ম ২৩ অক্টোবর ১৯৫৭বর্তমান নিবাস পূর্ব আদালত পাড়া, টাঙ্গাইল। বাংলা ভাষা সাহিত্যে সম্মানসহ মাস্টার্স, পেশায় অধ্যাপনাপ্রথম কাব্যগ্রন্থ পরকীয়া (১৯৯৭) দিয়ে আত্মপ্রকাশ শুরু  কাব্যচর্চার পাশাপাশি লিখেছেন গল্প, উপন্যাস, প্রবন্ধ, ভ্রমণ, স্মৃতিকথাপঁচিশটিরও অধিক মৌলিক গ্রন্থ রয়েছে এছাড়াও কখনও একক ভাবে কখনও যৌথ ভাবে সম্পাদনা করেছেন কবিতা নিয়ে একাধিক প্রামাণ্য গ্রন্থ

তিনি কেবল কবি নন, একজন সফল সংকঠকও ১৯৯০ সাল থেকে সম্পাদক, টাঙ্গাইল সাধারণ গ্রন্থাগার। টাঙ্গাইল জেলার বহু সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডের সাথে ওতপ্রোত জড়িত  ২০০৬ থেকে বাংলা কবিতা উৎসব শিরোনামে একটি কবিতা উৎসবের আয়োজন করে আসছেন এই উৎসবে প্রতি বছর অংশগ্রহণকারী কবির সংখ্যা  বাড়ছে ২০২০ তিনদিন ব্যাপী এই উৎসবে ঢাকাসহ সারাদেশ থেকে প্রায় ৩৫০শ আর অধিক কবি  এবং ভারত থেকে ৬০জন কবি অংশগ্রহণ করেছেন। তিনি ভারত ও বাংলাদেশ দুই দেশ থেকেপেয়েছেন অসংখ্য সম্মাননা পুরস্কার

Facebook Comments

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।